কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে শতাধিক ব্যক্তি আহত

রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে শতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। প্রয়োজনে কিংবা শখের বসেও অনেকে মাংস কাটাকাটি শুরু করেন।

শনিবার ঈদের দিন শুধুমাত্র ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালেই এমন শতাধিক ব্যক্তি চিকিৎসা নিয়েছেন।

ঢামেক হাসপাতালে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সারা দিনে মাংস কাটতে গিয়ে আহত হয়ে শতাধিক ব্যক্তি জরুরি বিভাগে চিকিৎসা নিয়েছেন। যাদের বেশিরভাগই হাতে ও পায়ে ধারালো ছুরি বা দায়ের আঘাত। অনেকের শরীরের বিভিন্ন স্থানেও জখমপ্রাপ্ত হয়েছেন। এছাড়া গরুর সিংয়ের আঘাত কিংবা লাথির আঘাতেও আহত হয়ে চিকিৎসা নিয়েছেন কয়েকজন।

হাত-পা কেটে ফেলা কয়েকজনের পাঁচটি থেকে ১০টি পর্যন্ত সেলাই লেগেছে। তবে কারও ভর্তির প্রয়োজন হয়নি। সবাইকেই প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

রাজধানীর অনেক এলাকা থেকেই লোকজন মাংস কাটাকাটি করতে গিয়ে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে ঢামেক হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন। তবে বেশিরভাগ রোগী ছিল যাত্রাবাড়ী, হাজারীবাগ, ধানমন্ডি এলাকার।

এ ব্যাপারে ঢামেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগের আবাসিক সার্জন ডা. আলাউদ্দিন বলেন, সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত শতাধিক ব্যক্তিকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। যারা কোরবানির মাংস কাটতে গিয়ে শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছেন। তবে সবাইকেই প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।